May 29, 2020

বড়লেখায় যৌতুক লোভী স্বামীর নির্যাতনের শিকার গৃহবধূ

সামছুল হক : বড়লেখা উপজেলার দক্ষিণভাগ ইউনিয়নের আরেঙ্গাবাদ গ্রামের মসুর উদ্দিন তোতা মিয়ার পুত্র আজিম উদ্দিন (৩৬)কতৃক গৃহবধূকে অমানবিক নির্যাতনের খবর পাওয়া গেছে। জানাযায় আজিম উদ্দিন বিগত প্রায় ১৪ মাস আগে কুলাউড়া উপজেলার ব্রাহ্মণবাজার ইউনিয়নের শ্রীপুর গ্রামের মুফিজ আলির কন্যা তামান্না বেগম (১৯) কে বিয়ে করে ঘর সংসার করে আসছে। তামান্না বেগম এর অভিযোগ তার স্বামী বিয়ের পর থেকেই গৃহ নির্মান বাবৎ পিত্রালয় থেকে যৌতুক হিসেবে নগদ ২ লক্ষ টাকা এনে দিতে চাপ দেয়,এ নিয়ে প্রায় সময় তাদের মধ্যে মনোমানিল্যতা লেগেই থাকতো এবং তাকে শারীরিক ও মানসিক নির্যাতন করে থাকতো। বিষয়টি নিয়ে দু পরিবারের মাঝেও সম্পর্কের টানাপোড়েন দেখা দেয় ১৩ মে বুধবার আজিম উদ্দিন তামান্নাকে যৌতুকের জন্য চাপ দিলে তাদের মধ্যে তর্কবিতর্কের এক পর্যায়ে পাষন্ড আজিম দেশীয় অস্ত্রদিয়ে তামান্না বেগম এর উপর অমানবিক নির্যাতন চালিয়ে মারপিট করে রক্তাক্ত জখম করে অজ্ঞান করে ফেলে খবর পেয়ে তামান্নার একমাত্র ভাই জহিরুল ইসলাম( ২৮) এসে তার বোনকে উদ্ধার করে কুলাউড়া সদর হাসপাতালে প্রাথমিক চিকিৎসা করে বড়লেখা থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন। এ প্রতিবেদককে তামান্নার ভাই জহিরুল ইসলাম বলেন আজিম উদ্দিন এর আগেও একটি বিয়ে করে ঘর সংসার করতে পারেনি প্রথম স্ত্রীকে তালাক দিয়েছিল। তার নির্যাতন সইতে না পেরে আজিম উদ্দিন এর পিতা তার বিরুদ্ধে মামলা করলে সে জেল হাজতে ছিল। তিনি পাষন্ড আজিম উদ্দিন এর বিচার চেয়ে সংশ্লিষ্ট মানবাধিকার সংস্থা তথা প্রশাসনের আশু হস্তক্ষেপ কামনা করেছে।

সর্বশেষ সংবাদ