September 15, 2019

আশা জাগাচ্ছেন ধোনি-জাদেজা

বিশ্বকাপ ডেস্ক : রিজার্ভ ডেতে বিশ্বকাপের সেমিফাইনালের ফয়সালায় নেমেছে ভারত নিউজিল্যান্ড। বিরাট কোহলিদের জন্য লক্ষ্য ২৪০ রান। কিন্তু এই স্বল্প টার্গেটে খেলতে নেমেই চরম বিপর্যয় ভারত শিবিরে। দলীয় ৫ রানেই তিন উইকেট পতন। ধুকে ধুকে জয়ের জন্য লড়াই চালিয়ে গেলেও টপ অর্ডার ব্যর্থতায় আরো বিপাকে পড়ে কোহলির দল। তবে ‘ক্যাপ্টেন কুল’ ধোনি ও রবীন্দ্র জাদেজার ব্যাটে ফাইনালের টিকিটের আশা জাগাচ্ছে ভারতকে।

এর আগে গতকাল ৪৬ ওভার ১ বল খেলা হবার পর শুরু হয় বৃষ্টি। তখন নিউজিল্যান্ডের সংগ্রহ ছিলো ৫ উইকেট হারিয়ে ২১১। এরপর আজ বাকী ইনিংসে ব্যাট করে ২৪০ রানের টার্গেট দাঁড় করায় তারা।

ভারতের ইনিংসের শুরুতে ব্যাক্তিগত ১ রান করে বিদায় নেন ফর্মে থাকা রোহিত শর্মা, বিরাট কোহলি, লোকেশ রাহুল। এ সময় কিউই বোলার ম্যাট হেনরি ও ট্রেন্ট বোল্ট দলীয় সংগ্রহের ৫ রানেই তিনজনকে সাজঘরে ফেরান। এখান থেকে দিনেশ কার্তিক  ও ঋশব পান্ত মিলে হাল ধরেন। তাতেও কোনো লাভ হলো না। ২৫ বল খেলে মাত্র ৬ রান করেই হেনরির বলে আউট হন তিনি। এরপর মিচেল স্যান্টনারের স্পিন আঘাতে ফেরেন ৩২ রান করা ঋশব পান্ত। হার্দিক পান্ডিয়া চাপ সামলে খেলছিলেন। তিনিও সেই ৩২ রানে সেই স্যান্টনারের বলে ক্যাচ উঠিয়ে দেন।

এই রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত ৪৫ ওভারে ৬ উইকেট হারিয়ে ভারতের সংগ্রহ ১৮৮। ক্রিজে আছেন এম এস ধোনি ৩৩ ও রবীন্দ্র জাদেজা ৬৬ রানে।

বিশ্বকাপে ভারত এর আগে ফাইনাল খেলেছে ৩ বার। ৩ বারের ফাইনালে কাপ জয় করেছে ২ বার। ১৯৮৩ ও ২০১১ সালে চ্যাম্পিয়ন হবার পাশাপাশি রানার্সআপ হয় ২০০৩ বিশ্বকাপে। তাদের সামনে চতুর্থ ফাইনাল খেলার হাতছানি।

আর নিউজিল্যান্ড ফাইনাল খেলেছে মাত্র ১ বার। ২০১৫ বিশ্বকাপে ঘরের মাঠে তারা হয়েছিল রানার্সআপ। এবারের ফাইনালে যেতে ভারতের চাই ২৪০ রান। আর এই রানে আটকাতে পারলেই টানা ফাইনাল খেলবে কিউইরা।

এর আগে টসে জিতে ব্যাট করতে নেমে শুরুতেই হোঁচট খায় নিউজিল্যান্ড। ১ রানেই নেই এক উইকেট। বুমরাহ, ভুবেনশ্বরের টাইট বোলিং। কিছুতেই স্বস্তি পাননি ওল্ড ট্রাফোর্ডে সেমি ফাইনাল খেলতে নামা নিউজিল্যান্ডের ব্যাটসম্যানরা। গাপটিলের বিদায়ে যেন স্থবির হয়ে যায় ব্ল্যাকক্যাপসদের ব্যাটিং অর্ডার। রানখরা পিছুই ছাড়েনি। এক, দুই রান করে দলীয় সংগ্রহ বাড়ান কাপ্তান উইলিয়ামসন। তবে সেটা খুবই ধীরগতিতে। অর্ধশতক পূর্ণ করে তিনিও সাজঘরে ফেরেন। এতে আরো চাপ বেড়ে যায়। ভারতীয় বোলারদের নিয়ন্ত্রিত বোলিংয়ের সামনে কিউইরা ১৫০ রান পূর্ণ করেন ৪০ ওভারে।

শেষ পর্যন্ত রস টেইলরের ৭৪ ও কেন উইলিয়ামসনের ৬৭ রানে ভর করে ৮ উইকেট হারিয়ে ২৩৯ রান করে তারা। ভুবেনশ্বর কুমার ৩৬ টি ও ১টি করে উইকেট পান বুমরাহ, হার্দিক পান্ডিয়া, যুজবেন্দ্র চাহাল, রবীন্দ্র জাদেজা।

র‌্যাঙ্কিংয়ে দু’দল
আইসিসি’র সবশেষ র‌্যাঙ্কিংয়ে ভারতের অবস্থান ২ নম্বরে। আর এক ধাপ পরেই কিউইরা। ভারতের রেটিং পয়েন্ট ১২৩। নিউজিল্যান্ডের ১১২।

আর বিশ্বকাপে ৯ ম্যাচের ৭টিতেই জয় পায় ভারত। এক ম্যাচ হয় পরিত্যক্ত। ১৫ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে ভারত। আর নিউজিল্যান্ড ৯ ম্যাচের ৫ টিতে জয় পায়। বৃষ্টিতে ভেসে যায় ১ ম্যাচ।

মুখোমুখি
বিশ্বকাপে খেলা ৮ ম্যাচে নিউজিল্যান্ড জয়ী ৪ ম্যাচে। আর ৩ ম্যাচে জয় পেয়েছে ভারত। পরিত্যক্ত হয় ১ ম্যাচ।

আর ওয়ানডে’তে ১০৭ বারের দেখায় ভারত জয় পেয়েছে ৫৫টি ম্যাচে। নিউজিল্যান্ড জয়ী হয় ৪৫ ম্যাচে। পরিত্যক্ত ৬ ম্যাচের পাশাপাশি ড্র হয় ১ ম্যাচ।

নিউজিল্যান্ড
একাদশ
কেন উইলিয়ামসন (অধিনায়ক), মার্টিন গাপটিল, হেনরি নিকোলস, রস টেইলর, টম লাথাম (উইকেটরক্ষক), কলিন ডি গ্র্যান্ডহোম, মিচেল স্যান্টনার, জিমি নিশাম, ম্যাট হেনরি, লুকি ফার্গুসন ও ট্রেন্ট বোল্ট।

ভারত একাদশ
বিরাট কোহলি (অধিনায়ক), রোহিত শর্মা (সহ-অধিনায়ক), রিশব পান্ত, মহেন্দ্র সিং ধোনি (উইকেটরক্ষক), দীনেশ কার্তিক, লোকেশ রাহুল, হার্দিক পান্ডিয়া, জসপ্রিত বুমরাহ, ভুবনেশ্বর কুমার, রবীন্দ্র জাদেজা এবং যুজবেন্দ্র চাহাল।

সর্বশেষ সংবাদ