August 24, 2019

যেভাবে সালমান শাহ ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রিতে আসেন

বাংলানিউজ ডেস্ক : মাত্র কয়েক বছরেই ক্যারিয়ারে তার ২৭টি ছবি মুক্তি পায়। বলা যায়, সালমান শাহের সব ছবিই ছিল সুপার ডুপার হিট। সালমান শাহ প্র্যাত হয়েছেন কিন্তু এদেশের কোটি মানুষের মনে এখনো জায়গা ধরে রেখেছেন। সালমান শাহ কীভাবে আজকের সালমান শাহ হয়ে উঠেছিলেন সে গল্প শুনিয়েছেন  সোহানুর রহমান সোহান।

নাঈম-শাবনাজকে নিয়ে ‘লাভ’ ছবির শুটিং করছিলাম। প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান আনন্দমেলা থেকে ডাক এলো। ওরা হিন্দি ‘সনম বেওয়াফা’, ‘দিল’, ‘কেয়ামত সে কেয়ামত তক’ ছবির কপিরাইট এনেছে। আমাকে একটি ছবি করার প্রস্তাব দিল। নাঈম-শাবনাজকে নিয়েই ছবিটি বানাতে বলল। অগ্রিম টাকা নিয়ে সেদিন রাতেই দেখা করলাম। ওরা টাকা নিল না। নাঈম বলল, কিছুদিন পর ‘দিল’ মুক্তি পাবে। ফলাফল দেখে নতুন ছবি হাতে নেবে।

প্রযোজক বললেন, ‘আমিন খান ও নাদিম নামে আরো দুই নতুন নায়ক আছে। ওদের ট্রাই করেন।’ আমিন তখন আরেকটি ছবির শুটিং করছে। সেটা শেষ না করে নতুন ছবি হাতে নিতে পারবে না। নাদিমও একইভাবে ‘না’ করে দিল। পরে সিদ্ধান্ত নিলাম, নতুন মুখ পেলে ছবিটি করব, নইলে ছেড়ে দেব। কিছুদিনের মধ্যে মৌসুমীকে চূড়ান্ত করলাম। এরই মধ্যে নায়ক আলমগীরের সাবেক স্ত্রী খোশনুর জানাল ইমন নামের এক ছেলের কথা। দুই দিন ফোন করেও পেলাম না, তৃতীয় দিন পেলাম।

এরপর একটি চায়নিজ রেস্টুরেন্টে আসতে বললাম। প্রথম দেখাতেই ওকে পছন্দ হলো। ঠিক করলাম, ওকে দিয়ে ‘সনম বেওয়াফা’ করব। কিন্তু ও যখন শুনল ‘কেয়ামত সে কেয়ামত তক’ ছবিটিও আমি করব, তখন বেঁকে বসল, সে ‘কেয়ামত সে কেয়ামত তক’ করবে। কারণ ছবিটি এরই মধ্যে ২৬ বার দেখেছে ইমন। ওর কথা মেনেই হলো ‘কেয়ামত থেকে কেয়ামত’। আর নাম বদলে হয়ে গেল সালমান শাহ। পরের ইতিহাস তো সবার জানাই।

সূত্র : কালের কণ্ঠ

সর্বশেষ সংবাদ