April 25, 2019

মাকে হত্যা করে রক্তপান

বাংলানিউজ ডেক্স : ভারতের ছত্তিশগড়ে ইংরেজি নতুন বছরে এক মাকে হত্যা করে তার রক্ত পান করেছে এক নরপিশাচ। এ ঘটনা ঘটেছে ছত্তিশগড়ের বোরবা জেলায়। সেখানে দিলিপ যাদব নামে ২৯ বছর বয়সী ওই নরপিশাচ যখন তার মাকে হত্যা করে রক্ত পান করছিল তখন তা দেখে ফেলে অন্য একজন নারী। তিনি তা দেখে কাঁপতে কাঁপতে অস্থির হয়ে পড়েন। তিনি দিন পরে যখন সম্বিত ফিরে পান তখন সোজা চলে যান পুলিশের কাছে। খবর পেয়ে পুলিশ গিয়ে উপস্থিত হয়। ততক্ষণে দিলিপ যাদব তার মায়ের মৃতদেহ টুকরো টুকরো করে কেটে পুড়িয়ে ফেলেছে। এ খবরটি প্রত্যন্ত এলাকায় ছড়িয়ে পড়ে শনিবার। তবে দিলিপকে ধরতে পারে নি পুলিশ। পলাতক রয়েছে সে। তাকে ধরতে পুলিশ হন্যে হয়ে চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে।
পুলিশকে গ্রামবাসী বলেছে, দিলিপ তন্ত্রমন্ত্র চর্চা করে। মাঝে মাঝেই মানুষকে কোরবানি দেয়ার কথা বলে। সে তার মাকে ডাইনি বলে আখ্যায়িত করতো। দিলিপের পিতা ও ভাইয়ের মৃত্যুর জন্য সে তার মাকে দায়ী করে। কোরবার অতিরিক্ত এসপি জয়প্রকাশ বাধাই বলেন, সমিরন যাদব নামে একজন বৃহস্পতিবার রাতে চাইতমা পুলিশ স্টেশনে গিয়ে ঘটনার বর্ণনা দেন। এ কথা শুনে পুলিশ সদস্যরা স্তম্ভিত হয়ে পড়েন। সমিরণ পুলিশকে বলেছেন, তিনি একজন প্রতিবেশীকে দেখতে গিয়েছিলেন ৩১ শে ডিসেম্বর সকালে। নিয়মিত তিনি ওই প্রতিবেশীকে দেখতে যেতেন। তিনি দিলিপের ঘরের কাছে যেতেই ভয়ঙ্কর এক শব্দ শুনতে পান। যতই কাছে এগিয়ে যান দেখতে পান দিলিপ তার মাকে মাথায়, কাঁধে ও বুকে কুড়াল দিয়ে কোপাচ্ছে। ভয়ে জমে যান সমিরণ। তিনি দেখতে পান তার মায়ের শরীর থেকে যে রক্ত গড়িয়ে পড়ছে তা পান করছে দিলিপ।

সর্বশেষ সংবাদ